বিশুদ্ধ নির্বাচন হলে উদার গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা পাবে : ড. সা’দত

তানভীর আহমেদ: বর্তমান সময়ের আমাদের সবচেয়ে বড় ক্রিটিকাল ইস্যু হচ্ছে একটি বিশুদ্ধ নির্বাচন। এটা করতে পারলে আমরা ধীরে ধীরে লিবারেল ডেমোক্রেসির দিকে চলে আসতে পারবো। গতকাল শনিবার রাজধানীর এক অভিজাত রেষ্টুরেন্টে ইনিশিয়েটিভ ফর দ্য প্রমোশন অব লিবারেল ডেমোক্রেসি (আইপিএলডি) কর্তৃক আয়োজিত এক সেমিনারে একথা বলেছেন সাবেক মন্ত্রিপরিষদসচিব ড. সা’দত হুসাইন। সেমিনারে উদার গণতন্ত্র বিষয়ক একটি গবেষণাপত্র তুলে ধরা হয়। আইনজীবী, সাংবাদিক, ব্যবসায়ী এবং রাজনীতিবিদসহ মোট ১০০ জনের উপর এ গবেষণা করা হয়েছে বলে উল্লেখ্য করা হয়।
ড. সা’দত বলেন, লিবারেল ডেমোক্রেসির মাধ্যমে সব জাতীয় লোকজন, সব দল সবকিছুতে সুযোগ পাবে। চাকরি পেতে হলে বলতে হবে না যে, আমরা রুলিং পার্টির দল। এ ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠিত হলে পরবর্তী ৩০-৪০ বছরে আমাদের আর নতুন করে শাসনতান্ত্রীক পদ্ধতির কথা আর চিন্তা করতে হবে না।
সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা এম হাফিজ উদ্দিন খান বলেন, আমাদের মাঝে ডেমোক্রেটিক মাইন্ডসেট, ডেমোক্রেটিক কালচার, ডেমোক্রেটিক ভেলুসকে প্রমোট করার মতো মনোবৃত্তি নেই। যা একটি বড় সমস্যা।
রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিক বিশ্লেষক ইকতেদার আহমেদ বলেন, বাংলাদেশের গণতন্ত্র পারিবারিক কোটাতে আবদ্ধ। বিএনপি, আওয়ামীলীগ এবং জাতীয় পার্টির মত দলে দলীয় প্রধানের বাহিরে অন্য কাউকে তাদের উত্তরসুরি হিসেবে কল্পনা করেন না। দেশের শীর্ষস্থানীয় দলগুলোর যদি এমন মনোভাব থাকে, তাহলে সেখানে গণতন্ত্রের ভবিষ্যত কি?। আমাদের প্রজাতন্ত্রের কর্মচারিদের কর্তব্য হচ্ছে জনগণকে নিস্বার্থ সেবা প্রদান। এই সেবা প্রদানের মান নিশ্চিত করতে হবে।
এছাড়া গবেষণা পত্রে তুলে ধরা হয় যে, লিবারেল ডেমোক্রেসির উপর জনগণের স্পষ্ট ধারণা নেই। ডেমোক্রেসি বলতে তারা সুষ্ঠু, অবাধ ও নিরপেক্ষ নির্বাচনকে বোঝেন। শিক্ষিত লোকের সংখ্যা স্বল্পতা, রাজনীতি বিষয়ে অসচেতনতা এবং প্রচারের অভাবের কারণে উদার গণতন্ত্র সম্পর্কে তারা সচেতন নয়। সিংহভাগ উত্তরদাতা উদার গণতন্ত্রের ভিত্তিতে সরকার গঠনের পক্ষে।
অনুষ্ঠানে প্রকৌশলী ফজলুল আজিম, সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা আইয়ুব কাদরী, ইন্ডিপেন্ডেন্ট চ্যানেল নির্বাহি সম্পাদক খালেদ মহিউদ্দিনসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।

Category: Interview, Slider

You may use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <s> <strike> <strong>